mb

করোনার উপসর্গ নিয়ে মারা গেলেন ডা. এম মতিন

721

মৌলভীবাজার২৪ ডেস্কঃ সিলেট শহীদ শামসুদ্দিন আহমদ হাসপাতালে করোনার উপসর্গ নিয়ে মারা যাওয়া স্বাস্থ্য বিভাগের সাবেক সহকারী পরিচালক ডা. এম মতিন করোনাভাইরাসে আক্রান্ত ছিলেন।
তার গ্রামের বাড়ি মৌলভীবাজারের কমলগঞ্জ উপজেলার পতনঊষার ইউনিয়নের রামেশ্বরপুরে।
শনিবার (২৩ মে) স্বাস্থ্য অধিদপ্তর সিলেট বিভাগীয় কার্যালয়ের সহকারী পরিচালক আনিসুর রহমান এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন।
তিনি বলেন, শুক্রবার ওসমানী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের পিসিআর ল্যাবে নমুনা পরীক্ষায় সাবেক সিভিল সার্জনের শরীরে করোনাভাইরাস পজিটিভ পাওয়া যায়।
এর আগে শুক্রবার (২২ মে) রাত ৯টায় সিলেট শহীদ শামসুদ্দিন আহমদ হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় তার মৃত্যু হয়। এরপর স্বাস্থ্য বিধি মেনে রাত ১টায় নগরীর মানিকপীর টিলায় তাকে দাফন করা হয়। তিনি সিলেট নগরীর উপশহরের বাসিন্দা ছিলেন।
কোডিভ-১৯ এর উপসর্গ নিয়ে শুক্রবার সকালে তিনি শহীদ শামসুদ্দিন আহমদ হাসপাতালে ভর্তি হন। এরপর তার নমুনা সংগ্রহ করে পরীক্ষাগারে পাঠানো হয়। কিন্তু রিপোর্ট আসার আগেই রাত ৯টায় তিনি মৃত্যুবরণ করেন।
সিলেট সিটি করপোরেশনের প্রধান স্বাস্থ্য কর্মকর্তা ডা. জাহিদুল ইসলাম  বলেন, রাত ১টার দিকে স্বাস্থ্য বিধি মেনে সিটি করপোরেশনের উদ্যোগে ডা. এম এ মতিনের দাফন সম্পন্ন হয়। দাফন কাজে ইসলামী ফাউন্ডেশন সহযোগিতা করে।
মৃত্যুকালে তিনি ২ ছেলে ও এক মেয়েসহ অসংখ্যক গুণগ্রাহী রেখে গেছেন।
মৌলভীবাজার বিএমএ-এর সদস্য ডা. এম এ মতিন স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের অবসরপ্রাপ্ত সহকারী পরিচালক ( ঢাকা সিটি কর্পোরেশনের ম্যালেরিয়া কন্ট্রোল কর্মরত ছিলেন (ডেপুটেশনে)।
এছাড়াও দীর্ঘ চাকরী জীবনে তিনি মৌলভীবাজার সদর উপজেলাসহ জেলার বিভিন্ন উপজেলায় উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা হিসেবে দায়িত্ব পালন করেন।
অবসরের পর তিনি সূর্যের হাসি ক্লিনিক-মৌলভীবাজারের মেডিকেল ইনচার্জ হিসেবে দায়িত্ব পালন করেন।
ডা. এম এ মতিনের বড় ছেলে শরীফ আহমদ রাজধানীতে ব্যবসা করেন। ছোট ছেলে সাইফ আহমদ সিলেট শাহজালাল বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ব বিদ্যালয়ের ইংরেজি বিভাগের সহকারী অধ্যাপক। মেয়ে ডা. রাবেযা বেগম মুন্নি, সিলেট নর্থইষ্ট মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে গাইনী বিভাগের কনসালটেন্ট হিসেবে কর্মরত।
তিনি ওসমানী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের সাবেক উপ-পরিচালক, সুনামগঞ্জ, হবিগঞ্জ ও মৌলভীবাজারের সাবেক সিভিল সার্জন ডা. শফিক আহমদের ছোট মামা।

10