মৌলভীবাজারের এসএসসি ফলাফল: জিপিএ-৫ শীর্ষে যারা

2,994

মৌলভীবাজার টুয়েন্টিফোর ডট কম: এসএসসি পরীক্ষায় মৌলভীবাজার জেলার সর্বোচ্চ এপ্লাস প্রাপ্ত শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের মধ্যে শীর্ষে আছে শ্রীমঙ্গলের দি বার্ডস রেসি: মডেল হাই স্কুল এন্ড কলেজ। দাখিলে শীর্ষে আছে বড়লেখায় সুজাউল সিনিয়র ফাজিল মাদ্রাসা।

মঙ্গলবার মৌলভীবাজার জেলার এসএসসি ও দাখিলে সর্বোচ্চ এ+ প্রাপ্ত প্রতিষ্ঠানের তালিকা প্রকাশ করেছে। বিষয়টি জেলা শিক্ষা কর্মকর্তা আবু সাঈদ মো: আব্দুল ওয়াদুদ সিলেটভিউকে নিশ্চিত করেছেন।

তথ্য অনুযায়ী, শীর্ষ অবস্থানে থাকা শ্রীমঙ্গলের দি বার্ডস রেসি: মডেল হাই স্কুল এন্ড কলেজ থেকে ১৪০ জন শিক্ষার্থী এসএসসিতে অংশ নিয়ে পাশ করেছেন ১৩৯ জন। জিপিএ-৫ পেয়েছেন ৬৩ জন শিক্ষার্থী। ২য় অবস্থানে থাকা মৌলভীবাজার সরকারী উচ্চ বিদ্যালয় থেকে ২২৭জন ছাত্র পরীক্ষায় অংশ নিয়ে পাশ করেছেন ২২৩জন। জিপিএ-৫ পেয়েছেন ৫২ জন ছাত্র। ৩য় অবস্থানে আছে আলী আমজদ সরকারী বালিকা উচ্চ বিদ্যালয়। এই প্রতিষ্ঠান থেকে ২৩২ ছাত্রী অংশ নিয়ে পাশ করেছেন ২১২ছাত্রী। জিপিএ-৫ পেয়েছেন ৩৭ জন ছাত্রী।

৪র্থ অবস্থানে থাকা বড়লেখার আরকে লাইসিয়াম স্কুল থেকে ৬০জন পরীক্ষা দিয়ে শতভাগ করেছেন। জিপিএ-৫ পেয়েছেন ২৯ জন। ৫ম এ আছে রাজনগর আইডিয়েল হাই স্কুল। এই স্কুল থেকে ৯৫জন অংশ নিয়ে শতভাগ পাশ করেছেন। জিপিএ-৫ পেয়েছেন ২৮ জন। ৬ এ আছে কমলগঞ্জের বিএএফ শাহীন কলেজ। এই প্রতিষ্ঠান থেকে ১০৩ জন অংশ নিয়ে ১০২ জন পাশ করেছেন। জিপিএ-৫ পেয়েছেন ২৭ জন।

৭ম অবস্থানে আছে মৌলভীবাজারের দি ফ্লাওয়ার্স কেজি এন্ড হাই স্কুল। এই প্রতিষ্ঠান থেকে ১১৪ জন পরীক্ষা দিয়ে ১০৭ জন পাশ করেছেন। জিপিএ-৫ পেয়েছেন ২৬ জন। ৮ম অবস্থানের শ্রীমঙ্গলের বিটিআরআই উচ্চ বিদ্যালয় থেকে ৬৬জন অংশ নিয়ে ৬১জন পাশ করেছেন। জিপিএ-৫ পেয়েছেন ২৩ জন।

৯ম অবস্থানের রাজনগরের আব্দুর মুক্তাদির একাডেমী থেকে ৫২জন অংশ নিয়ে শতভাগ পাশ করেছেন। জিপিএ-৫ এসেছে ১৬টি। ১০এ থাকা কমলগেঞ্জর তেতইগাও রশিদ উদ্দিন বিদ্যালয় থেকে ৩০১ জন পরীক্ষা দিয়ে পাশ করেছেন ২৭১জন। জিপিএ-৫ পেয়েছেন ১৬ জন। ১১তম অবস্থানে আছে বড়লেখার নারী শিক্ষা একাডেমী মাধ্যমিক উচ্চ বিদ্যালয়। এই প্রতিষ্ঠান থেকে ৮৭জন পরীক্ষা দিয়ে ৭৫জন পাশ করেছেন। জিপিএ-৫ পেয়েছেন ১৬ জন।

অন্যদিকে দাখিল পরীক্ষায় জেলার শীর্ষ অবস্থানে আছে বড়লেখার সুজাউল সিনিয়র ফাজিল মাদ্রাসা। এই প্রতিষ্ঠান থেকে ১২০ জন পরীক্ষা দিয়ে ১১৭ জন পাশ করেছেন। জিপিএ-৫ পেয়েছেন ৩ জন। ২য় অবস্থানে থাকা বড়লেখার ইটাউরী মহিলা আলিম মাদ্রাসা থেকে ৩১জন পরীক্ষা দিয়ে শতভাগ পাশ করেছেন। জিপিএ-৫ পেয়েছেন ২ জন। ৩য় অবস্থানে থাকা বড়লেখা জামেয়া ইসলামীয়া দাখিল মাদ্রাসা থেকে ৬৫জন পরীক্ষা দিয়ে ৬৪জন পাশ করেছেন। জিপিএ-৫ পেয়েছেন ২ জন।

৪এ থাকা কুলাউড়ার ভাটেরা সাইফুল-তাহমিনা দাখিল মাদ্রাসা থেকে ২৮ জন পরীক্ষা দিয়ে শতাভাগ পাশ করেছেন। জিপিএ-৫ পেয়েছেন ২ জন। ৫ম অবস্থানে থাক সদর উপজেলার নওমৌজা বাড়ন্তি দাখিল মাদ্রসা থেকে ৫০ জন পরীক্ষা দিয়ে ৪১জন পাশ করেছেন। জিপিএ-৫ পেয়েছেন ১ জন।